1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : Ashraful Abedin : Ashraful Abedin
  3. [email protected] : masud :
রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৯:১৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
ঈশ্বরদীতে পৌর কাউন্সিলর কামাল হোসেনের মুক্তির দাবিতে সভা অনুষ্ঠিত ঈশ্বরদীর বাঘইল স্কুল এন্ড কলেজে পুণঃমিলনী সভা অনুষ্ঠিত বাঘইল স্কুল এন্ড কলেজের ৭৫ তম বছর পূর্তি অনুষ্ঠান বাস্তবায়ন কমিটির সভা অনুষ্ঠিত ঈশ্বরদীতে নিষিদ্ধ ট্রাপেন্ডাডল ট্যাবলেটসহ এক নেতা গ্রেফতার প্রবাস জীবন শেষে হতাশাগ্রস্ত রায়হান মাছ ও ফলনশীল গাছের চাষ করে কোটিপতি ঈশ্বরদী থেকে সাত ভাই একসাথে পবিত্র ওমরাহ হজ্ব পালনের উদ্দেশ্যে সৌদি যাত্রা ঈশ্বরদী আইকে রোডে অত্যাধুনিক “গ্রীণসীটি সি ফুড স্টেশন”এর উদ্বোধন ঈশ্বরদীতে নিঁখোজের ছয়দিন পর বিএনপি নেতার পুকুর থেকে সুমনের লাশ উদ্ধার মেজর ইমরুল আলম (অব:) এর পক্ষ থেকে শীতার্তদের মাঝে কম্বল বিতরণ পাকশীতে নিরাপত্তাবাহিনী থেকে ৩৬ বছর পর আবু হেনার বিদায়

রুপপুর পরমাণু প্রকল্প এলাকায় স্বাস্থ্যবিধি রক্ষায় পুলিশের চব্বিশ ঘন্টা কঠোর নজরদারী

  • প্রকাশিত : বৃহস্পতিবার, ১৫ জুলাই, ২০২১
  • ৫২৫ বার দেখা হয়েছে

ঈশ্বরদী প্রতিনিধি ।। সাম্প্রতিক সময়ে ঈশ্বরদীতে করোনার প্রাদুর্ভাব বেশী হওয়ায় রুপপুর পরমাণু প্রকল্পের শ্রমিক ও সাধারণ মানুষ স্বাস্থ্যবিধি মেনে কর্মকান্ড চালাতে শুরু করেছে।

এই প্রকল্পকে ঘিরে বিভিন্ন জেলার শ্রমিকরা কাজ ও চলাচল করায় স্বাস্থ্যবিধি ভেঙ্গে পড়ার আশংকায় পুলিশ তৎপর হয়ে উঠেছে। এখানকার স্বাস্থ্যবিধি শতভাগ ঠিক রাখতে ও করোনা প্রতিরোধে উর্ধ্বতন কর্তৃপক্ষের নির্দেশে রুপপুর পুলিশ ফাঁড়ির পক্ষ থেকে ফাঁড়ি ইনচার্জ এসআই আতিকুল ইসলামের নেতৃত্বে বিশেষ চেকিং কার্যক্রম শুরু করা হয়েছে।

গত কয়েকদিন থেকে পাকশী লালনশাহ সেতু টোলের মুখে কড়া চেকপোষ্ট বসিয়ে চেকিং কার্যক্রম পরিচলানা করা হচ্ছে। প্রকল্প এলাকা দিয়ে চলাচল কারীদের সচেতনতা বৃদ্ধিতে জিজ্ঞাসাবাদ করা হচ্ছে। এতে রুপপুর পরমাণু প্রকল্পের স্থানীয় ও নিকটস্থ জেলার শ্রমিক এবং সাধারণ মানুষ বিনা কারণে মাস্ক বিহিন ঘোড়াফেরা করতে পারছেনা। ফলে প্রকল্প এলাকার স্বাস্থ্যবিধিও লংঘন হচ্ছেনা।

এদিকে পুলিশের এধরনের পদক্ষেপে ঈশ্বরদী বাসী সন্তোষ প্রকাশ করেছেন। রুপপুর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ এসআই আতিকুল ইসলাম বৃহস্পতিবার সাংবাদিকদের জানান, রুপপুর পরমাণু প্রকল্প চালু আছে। এখানে নানা জেলার লোকজন কাজ করতে আসে। আমরা এখানে চব্বিশ ঘন্টা ডিউটি করছি এবং কঠোর নজরদারী বাড়িয়েছি। অপ্রয়োজনে কেউ যেন বাইরে যেতে না পারে সেদিকে নজর রাখা হচ্ছে। বিশেষ করে এখানে যারা শ্রমিকরা আসা যাওয়া করছে তারা যেন স্বাস্থ্য বিধি মেনটেইন করে সেদিকে খেয়াল রাখছি।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

আরো সংবাদ

সাম্প্রতিক সংবাদ

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায় সিসা হোস্ট