1. [email protected] : admin :
  2. [email protected] : Ashraful Abedin : Ashraful Abedin
  3. [email protected] : masud :
রবিবার, ২৫ সেপ্টেম্বর ২০২২, ০৫:১০ অপরাহ্ন
শিরোনাম :
ঈশ্বরদীতে গৃহবধু মালা হত্যার বিচার ও আসামিদের ফাঁসির দাবিতে সংবাদ সম্মেলন ও মানববন্ধন অনুষ্ঠিত ঈশ্বরদী কিন্ডার গার্টেন এসোসিয়েশনের প্রীতি সম্মিলনে নতুন কমিটি গঠন আকরাম আলী খান সঞ্জু ফুটবল টুর্ণামেন্টে জাগ্রত সংঘ ৩-১ গোলে চ্যাম্পিয়ন জেলা পরিষদ নির্বাচনকে সামনে রেখে ঈশ্বরদী উপজেলা আওয়ামী লীগের মতবিনিময় সভা অনুষ্ঠিত টিসিবির জন্য কেনা হবে ১৬৫ লাখ লিটার সয়াবিন ফুটবল তারকা রূপনা চাকমার জন্য ঘর নির্মাণের নির্দেশ প্রধানমন্ত্রীর রোহিঙ্গাদের মিয়ানমারে প্রত্যাবাসনে জাতিসংঘের বলিষ্ঠ ভূমিকার আহ্বান প্রধানমন্ত্রীর দেশের কোথাও সারের সংকট নেই : খাদ্যমন্ত্রী ঈশ্বরদীতে স্বামীর উপর অভিমান করে এসএসসি পরীক্ষার্থীর আত্মহত্যা দেশে গত ২৪ ঘন্টায় করোনায় ৫ জনের মৃত্যু

ঈশ্বরদীতে পদ্মা নদীর মাটি ও বালু লুটেরা বাহিনীর গডফাদারসহ গ্রেফতার তিনজন

  • প্রকাশিত : বুধবার, ২১ এপ্রিল, ২০২১
  • ১১৯৪ বার দেখা হয়েছে

স্টাফ রিপোর্টার ঈশ্বরদী ॥ মাটি ভর্তি একটি ড্রাম ট্রাক সহ ঈশ্বরদীর লক্ষ্মীকুন্ডা ইউনিয়নের পদ্মা নদীর মাটি ও বালু লুটেরা সিন্ডিকেডের গড ফাদার কামাল উদ্দিন সহ তিন সদস্যকে গ্রেফতার করেছে ঈশ্বরদী থানার বেরসিক অফিসার ইনচার্জ আসাদুজ্জামান ও এসআই আতিক।

গ্রেফতারকৃত অন্যরা হলো লক্ষিকুন্ডা ইউনিয়নের বিলকেদা গ্রামের মৃত আমির উদ্দিন প্রাং ছেলে রাজা প্রাং ও মৃত তোফাজ্জল হোসেনের ছেলে জামিরুল ইসলাম।

গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বুধবার গভীর রাতে ঈশ্বরদী থানার বেরসিক অফিসার ইনচার্জ আসাদুজ্জামানের নেতৃত্বে রূপপুর পুলিশ ফাঁড়ির ইনচার্জ আতিকুল ইসলাম আতিক সঙ্গীয় ফোর্স নিয়ে লক্ষ্মীকুন্ডার বিভিন্ন এলাকায় অভিযান চালান। ঈশ্বরদী থানা, রূপপুর পুলিশ ফাঁড়ির ও এলাকা বাসীদের দেওয়া তথ্য সুত্রে এসব জানা গেছে।

সুত্রমতে, চক্রটি দীর্ঘদিন ধরে পদ্মা নদী থেকে মাটি-বালু প্রকাশ্যে লুট করে লক্ষ্মীকুন্ডা ইউনিয়নে চরাঞ্চলের খাস জমিতে অবৈধভাবে গড়ে ওঠা ৫৬টি ইটভাটায় বিক্রি করে আসছিল । একই ভাবে ঐ সব ইটভাটার মালিকরাও মাটি ও বালি চুরি সিন্ডিকেটের সঙ্গে যুক্ত হয়ে সরকারী খাস ও ব্যক্তি মালিকানাধীন সমতল ফসলী জমি থেকে মাটি কেটে ও বালি তুলে বিক্রয় করছেন। এতে ব্যক্তিগতভাবে এই সিন্ডিকেট সদস্যরা কোটি কোটি টাকার মালিক হলেও সরকারকে প্রতি বছর কয়েক কোটি টাকার রাজস্ব হারাতে হচ্ছে। সুত্র মতে, থানা পুলিশ ইতিপূর্বেও একাধিক অভিযান চালিয়ে ঐসব পয়েন্ট থেকে ১০/১২ টি ড্রাম ট্রাক, ট্রাক্টর, মাটি ও বালি কাটার এস্কেভেটর (বেকু) জব্দ করে অর্ধশতাধিক ব্যক্তির বিরুদ্ধে মামলা দায়ের ও ১৫জনকে আটক করে জেল হাজতে প্রেরণ করে। কিন্তু আসামীরা জামিনে ছাড়া পেয়ে আবারও পদ্মানদী থেকে বেপরোয়া ভাবে মাটি কাটা ও বালি লুট শুরু করেছে।

সুত্রমতে বিষয় গুলো সংশ্লিষ্ট প্রশাসনের দায়িত্বশীলদের জানা থাকলেও রহস্যজনকভাবে মাটি-বালু লুট এবং অবৈধ ইটভাটায় ইট তৈরী বন্ধ না হওয়ায় পুলিশ প্রশাসন এই অভিযান চালায়।
ঈশ্বরদী থানার অফিসার ইনচার্জ আসাদুজ্জামান আসাদ জানান, গ্রেফতারকৃতরা পদ্মা নদী থেকে অবৈধভাবে মাটি চুরি ও বালি উত্তোলন মামলার পলাতক আসামী ছিলো। তাদের গ্রেফতার করে পাবনা আদালতে প্রেরণ করা হয়েছে। অবৈধভাবে মাটি চুরি ও বালি উত্তোলন প্রতিরোধে পুলিশি অভিযান অব্যাহত থাকবে বলেও তিনি জানান।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published.

আরো সংবাদ

সাম্প্রতিক সংবাদ

এই ওয়েবসাইটের কোনো লেখা, ছবি, ভিডিও অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করা সম্পূর্ণ বেআইনি এবং শাস্তিযোগ্য অপরাধ
© প্রকাশক কর্তৃক সর্বস্বত্ব সংরক্ষিত
প্রযুক্তি সহায়তায় সিসা হোস্ট